MotorcycleValley Adda
Yamaha Banner
Search

কীভাবে মোটরসাইকেলে অতিরিক্ত ফুয়েল বহন করবেন?

2021-03-23 Views: 288

কীভাবে মোটরসাইকেলে অতিরিক্ত ফুয়েল বহন করবেন?

1616482058_how-to-carry-extra-fuel-in-your-motorcycle-stay-fueled.jpg
মোটরসাইকেল হল একটি বাহন যার মাধ্যেমে যে কোন স্থানে নিজের ইচ্ছা মত যাতায়াত করা যায়। এমন অনেক দর্শনীয় স্থান আছে যেখানে চার চাকার বাহন কিংবা অন্যান্য বাহন নিয়ে যাওয়া যায় না কিন্তু মোটরসাইকেল নিয়ে সেখানে অনায়াসেই যাওয়া যায়। বাইক নিয়ে ভ্রমণ পিপাসুরা সেই সুযোগটি কাজে লাগিয়ে ভ্রমণ করেন । বাংলাদেশের এমন অনেক স্থান রয়েছে যেখানে বাইকাররা তাদের প্রিয় বাইক নিয়ে পৌঁছাতে সক্ষম হয়েছেন এবং যেসব রাস্তায় বড় যানবাহন চলাচল করে না সেখানে ফুয়েল স্টেশন/ গ্যাস স্টেশনের সংখ্যা অতি নগণ্য। এক্ষেত্রে বাইকারদের দরকার হয় তাদের ফুয়েল ট্যংকারে থাকা ফুয়েলের থেকে আরও অধিক ফুয়েল। আমাদের দেশে এমন অনেক বাইকই আছে যেগুলো তেল ধারণ ক্ষমতা অনেক বেশি এবং অনেক বাইক আছে যেগুলোর তেল ধারণ ক্ষমতা প্রয়োজনের তুলনায় অনেক কম । এক্ষেত্রে কম তেল ধারণ ক্ষমতা সম্পন্ন বাইকের দরকার হয় অতিরিক্ত তেল। আজকে আমরা সেই বিষয় নিয়ে আলোচনা করবো যে আপনি আপনার বাইকের কীভাবে অতিরিক্ত তেল বহন করবেন।

স্ট্যাকেএবল লিকুয়িড স্টোরেজ কন্টেনার

স্ট্রাকএবল লিকুয়িড স্টোরেজ কন্টেনার খুবই মজবুত এবং দীর্ঘস্থায়ী একটি কন্টেনার। এই কন্টেনারের আকার ত্রিভুজাকৃতির এবং এর মাঝ বরাবর মুখের কাছে ফুয়েল লোড করার জন্য একটি ছিদ্র থাকে। তেল ধারণা ক্ষমতা ১ গ্যালন থেকে শুরু করে ৪.৫ গ্যালন পর্যন্ত বিভিন্ন ভেরিয়েন্টের হয়ে থাকে। স্ট্রাকএবল লিকুয়িড স্টোরেজ কন্টেনারে ফুয়েল অনেক নিরাপদ থাকে এবং কোন ধরনের ঝুঁকি থাকে না। বাইক নিয়ে এবড়ো থেবড়ো রাস্তায় রাইড করার পরও এই কন্টেনারের মজবুত গঠন ফুয়েল লিকেজ বা অন্যান্য সমস্যা হতে দেয় না। এটা ক্রাশ প্রতিরোধী এবং ফাটল বা লিকেজ প্রতিরোধী যার ফলে এটি অনেকটা নিরাপত্তা বিধান করে ফুয়েল বহনের ক্ষেত্রে। বাজারে বিভিন্ন স্ট্রাকএবল লিকুয়িড স্টোরেজ কন্টেনার রয়েছে এর মধ্যে মোটরসাইকেললিস্ট, এটিভি রাইডারস এবং অফরোডের জন্য রয়েছে রোটপ্যাক্স।

অ্যালুমিনিয়াম ফুয়েল বোতল

যদি আপনি অধিক পরিমাণে ফুয়েল/গ্যাস বহন করতে না চান সেক্ষেত্রে তার বিকল্প হতে পারে অ্যালুমিনিয়াম ফুয়েল বোতল। অনেক অ্যালুমিনিয়াম বোতল রয়েছে যেগুলোতে পানিও বহন করা যায় এবং দেখতেও একই রকম তাই বলে এই নয় যে সেগুলো ফুয়েল বহন করা যাবে। পানি বহন করা বোতলগুলো খুব সহজেই লিকেজ হতে পারে যেখানে অ্যালুমিনিয়াম ফুয়েল বহনকারী বোতল লিকেজপ্রুভ। এই অ্যালুমিনিয়াম বোতলে স্বল্প পরিমাণে তেল ধারণ করা যায় বিধায় এটা





কম দুরুত্বের জন্য উপযুক্ত। অ্যালুমিনিয়াম বোতলে তেল ধারণ ক্ষমতা হাফ গ্যালন প্রায়।

ফ্লেক্সিবল ফুয়েল ব্লাডার/ গ্যাস ব্যাগ

ফ্লেক্সিবল ফুয়েল ব্লাডার দীর্ঘদিন যাবত মিলিটারিতে এবং নৌকাতে ব্যবহৃত হয়ে আসছে যার ধারণ ক্ষমতা পর্যাপ্ত। এটা অতিরিক্ত ফুয়েল বহন করার একটি আধুনিক পদ্ধতি। ক্রস কান্ট্রি, বিশ্বভ্রমন বা দীর্ঘ এডভেঞ্চারের ক্ষেত্রে ফ্লেক্সিবল ফুয়েল ব্লাডার জ্বালানী বহনের জন্য বেশি সুবিধাজনক। ফুয়েল ব্লাডার ওজনে হালকা ও নমনীয় এবং এটা প্রচন্ডভাবে লিকেজ প্রতিরোধী হওয়ায় এর গ্রহনযোগ্যতা অনেকের কাছেই বেশি। এর ধারণ ক্ষমতা ১ গ্যালন থেকে ৫ গ্যালন হয়ে থাকে । ব্লাডারের বাইরের অংশে ব্যালিস্টিক নাইলন স্লিভ দ্বারা সুরক্ষিত থাকে। বাইকে ফুয়েল লোড করার জন্য এই ফুয়েল ব্লাডারের সাথে সংযুক্ত আছে একটি নজেল যার দ্বারা খুব ভালোভাবেই ফুয়েল বাইকে লোড করা যায়। এই ফেক্সিবল ফুয়েল ব্লাডার ব্যাগ বহন করাও অত্যান্ত সহজ । যে কোন বাইকের সাইড অংশে কিংবা লাগেজের সাথে সংযুক্ত করে এটি বহন করা যায়। যখন এই ব্যাগ ফুয়েল শুন্য হয়ে যায় তখন এটাকে খুব সহজভাবে ফোল্ডিং করে আপনার সুবিধাজনক স্থানে রাখতে পারবেন।

প্লাস্টিক গ্যাস ক্যান অথবা কন্টেনার

প্লাস্টিক গ্যাস কন্টেনার অত্যন্ত সহজলভ্য এবং ফুয়েল বহন করার একটি সহজ উপায়। এই কন্টেনারগুলো আমাদের আশেপাশে বাইক বা কারের গ্যারেজে পাওয়া যায়। প্লাস্টিক গ্যাস কন্টেনার তৈরির মূল উপাদান হল প্লাস্টিক। এটা মটরসাইকেলে ব্যবহার করা তেমন সুবিধাজনক না কারণ এটা বহন করতে অনেক জায়গায় প্রয়োজন হয় এবং এর হ্যান্ডেলটা মোটরসাইকেলের সাথে ব্যবহার উপযোগী নয় তবে এই প্লাস্টিক কন্টেনারকে যদি আপনি আপনার সুবিধামত রাইডের জন্য মডিফাই করতে পারেন তবেই এটি উত্তম। সব ধরনের প্লাস্টিক কন্টেনার ব্যবহার উপযোগী নয় রাইডিং করার জন্য। আপনাকে প্লাস্টিক কন্টেনার কেনার আগে সেটার গুণগত মান যাচাই করে তারপর কিনতে হবে। নিম্ন মানের প্লাস্টিক ক্যান ব্যবহারের ফলে গ্যাস লিকেজ হওয়ার প্রবণতা বেশি থাকে যার ফলে ঝুঁকিও বেশি। তাই উন্নতমানের প্লাস্টিক কন্টেনার হতে পারে আপনার ফুয়েল ধারণ করার সহায়ক অন্যথায় এটি রাইডিং এর জন্য সহায়ক নয়। বাজারে বিভিন্ন সাইজের প্লাস্টিক কন্টেনার দেখতে পাওয়া যায় । আপনি আপনার ধারণ ক্ষমতা অনুযায়ী যে কোন সাইজের কন্টেনার পছন্দ করতে পারেন তবে হ্যাঁ যেটা আমরা বারবার বলছি যে , প্লাস্টিক কন্টেনার গুলোর মান যেন উচ্চমানের হয়।

সহায়ক ট্যাংক

সহায়ক ট্যাংকে আরেকভাবে বলা যেতে পারে দ্বিতীয় ট্যাংক রিজার্ভ ট্যাংক । অর্থাৎ আপনি আপনার বাইকের স্টক ট্যাংকারের সাথে আরেকটি ট্যাংকার যুক্ত করছেন । মুলত এই পদ্ধতিকেই সহায়ক ট্যাংক হিসেবে অভিহিত করা হয়। এই সহায়ক ট্যাংক অনেকেই তাদের বাইকের সাথে স্থায়ীভাবে সংযুক্ত করে রাখেন অতিরিক্ত ফুয়েল রিজার্ভের জন্য। বাইকের সামনের অংশে কিংবা যে কোন একটি সুবিধাজনক স্থান নির্বাচন করে এই ট্যাংক স্থাপন করতে পারেন এবং এটা সরাসরি ইঞ্জিনের সাথেও সংযুক্ত করতে পারেন অথবা স্টক ট্যাংকারের সাথেও সংযুক্ত করতে পারেন। আমাদের দেশের বাজারে বাইক বা কার শপে এরকম সহায়ক ট্যাংকার পাওয়া যায় । যারা লং ট্রিপে যেতে চান যেখানে ফুয়েল নেওয়া কোনভাবেই সম্ভব না তাদের জন্য এই ট্যাংক বেশ উপযোগী একটি মাধ্যম। সহায়ক ট্যাংকের মূল বৈশিষ্ট্য হল এটা আপনাকে আপনার স্টক ট্যাংকের ফুয়েল শেষ হওয়ার পর আরও দীর্ঘক্ষন রাইডে আপনাকে সাহায্য করবে। রাইড শেষে এই ট্যাংক আপনি খুলেও নিতে পারেন অথবা আবার রিফিল করে ব্যবহার করতে পারেন। সহায়ক ট্যাংক ঘরে বসেই আপনি ইন্সটল করতে পারেন আর যদি না পারেন তাহলে দক্ষ মেকানিক দ্বারা এটি ইন্সটল করতে পারেন। এই ট্যাংক কেনার আগে অবশ্যই খেয়াল রাখবেন যে এটা যেন নিম্নমানের কোন ট্যাংক না হয়। যদি নিম্ন মানের ট্যাংক হয় তাহলে লিকেজের শঙ্কা অনেক বেশি থাকে।

এটাচএবেল সাইড মাউন্ট ফুয়েল ক্যানিস্টার

বাইকে ফুয়েল ধারণ করার সমস্যার জন্য আরও একটি সমাধান হল এটাচএবেল সাইড মাউন্ট ফুয়েল ক্যানিস্টার । এখানে খুব বেশি পরিমাণে ফুয়েল ধারণ করা যায় না সামান্য ব্যাক আপ এর জন্য এই ক্যানিস্টার ব্যবহার করা হয়। যারা খুব বেশি দূরে রাইড করেন না এবং যাদের বাইকের সাইড মাউন্ট করা আছে তাদের ক্ষেত্রে এটি প্রযোজ্য। এই ক্যানিস্টারটি সাইড ব্যাগের সাথে শক্তভাবে সংযুক্ত করা যায় এবং এটি সংযুক্ত করার প্রক্রিয়া অনেক সহজ। ভাল মানের ক্যানিস্টার আপনার রাইডকে নিরাপদ ও সহজ করবে এবং এটি ভালোভাবে সংযুক্ত করলে অধিক ঝুঁকিপূর্ণ রাস্তাতেও থাকবে সুরক্ষিত। বাজারে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের ফুয়েল ক্যানিস্টার পাওয়া যায় ।আপনাকে অবশ্যই ভালো মানের এবং ভালো ব্র্যান্ডের ফুয়েল ক্যানিস্টার ব্যবহার করতে হবে যাতে করে আপনার রাইড সুন্দর ও নিরাপদ হয়।

অতিরিক্ত ফুয়েল বহনের কিছু সতর্কতা

-যে পাত্রটি কিনবেন সেটি যেন অবশ্যই ভালো মানের হয় এবং সেটি যেন শুধুমাত্র ফুয়েল বহন করার জন্য ব্যবহার করা হয়। অন্যকিছু ব্যবহার করা বর্জন করবেন।
-বাইকের এক্সজস্ট পাইপ থেকে ফুয়েল বহনকারী ব্যাগ বা কন্টেনার নিরাপদ দুরুত্বে রাখতে হবে।
-সহায়ক ট্যাংকার মোটরসাইকেলের মাঝখানে প্লেস করতে পারলে খুবই ভালো।
-কন্টেনার যদি মোটরসাইকেলের সাথে সংযুক্ত থাকে তাহলে এটা অবশিষ্ট অন্যান্য যে কোন ব্যাগের সাথে জড়িয়ে রাখতে পারলে খুব ভালো । এতে লিকেজের সম্ভাবনা কম থাকে।
-ফুয়েল ধারণ করা ব্যাগে যতটুকু ফুয়েল ধরে তার থেকে বেশি ফুয়েল নেওয়া একদমই উচিত নয়।
-ক্ষয়ক্ষতি থেকে রক্ষা পেতে ট্যাংক গুলোর সাথে অবশ্যই স্টাবোলাইজার যুক্ত করুণ।
-আপনি আপনার চাহিদা ও বাইকের জায়গা অনুযায়ী ভালো মানের ফুয়েল ধারণকারী ব্যাগ ও কন্টেনার পছন্দ করুন। কমদামী বা নিম্নমানের ব্যাগ বা কন্টেনার একদমই ব্যবহার করা উচিত নয়।
-কন্টেনার বা ব্যাগ ব্যবহার করার আগে অবশ্যই চেক করে নিবেন যেন সেগুলো লিকেজ বা কোন ত্রুটি না থাকে।
-কন্টেনার বা ব্যাগের পরিবর্তে অন্য কোন জিনিস যেমন, পানির বোতল, পানির রাখার সস্তা কন্টেনার ইত্যাদি ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকতে হবে এবং বাজার থেকে অবশ্যই যেটা ফুয়েল ধারণ করার কন্টেনার সেটা কিনে ব্যবহার করতে হবে।
-গ্যাস কন্টেনার বা ব্যাগ অবশ্যই বাইকের গরম অংশ থেকে নিরাপদ দুরুত্বে রাখতে হবে ।
-কন্টেনার বা ব্যাগ যদি ব্যবহার করতে গিয়ে নষ্ট হয়ে যায় সেক্ষেত্রে সেটা অবশ্যই ফেলে দিয়ে নতুন কন্টেনার ব্যবহার করতে হবে।
-গ্যাস কন্টেনার গুলো একদম পরিপূর্ণ না করে মুখ থেকে সামান্য কিছু অংশ ফাকা রাখা ভালো।
অনেক প্রিয় বাইকার আছেন যারা লং ট্যুরের ক্ষেত্রে এগুলো ব্যবহার করেন । যেসব বাইকাররা এগুলো ব্যবহার করেন বা যারা এগুলো আদৌ ব্যবহার করেননি তারা অবশ্যই উপরিউক্ত বিষয়গুলো আমলে নিয়ে অতিরক্ত ফুয়েল ধারণকারী সরঞ্জাম ব্যবহার করবেন এবং কোন অপ্রীতিকর পরিস্থিতি যেন না ঘটে সেদিকে সজাগ দৃষ্টি রাখবেন। শুভ হোক আপনাদের বাইকিং ।
Rate This Tips

Is this tips helpful?

Rate count: 2
Ratings:
Rate 1
Rate 2
Rate 3
Rate 4
Rate 5

Bike Tips

মোটরসাইকেল রাইডিং এর ক্ষেত্রে ২টি গুরুত্বপুর্ন টিপস
2021-04-18

মোটরসাইকেল অনেকের কাছে খুবই পছন্দের একটি বাহন এবং নিত্যদিনের যাতায়াতের সঙ্গী। আমাদের দেশের প্রেক্ষাপটে অনেকেই আছেন যারা বাইক নিয়েই তাদের দৈনন্দিন কাজগুলো সম্পাদন করে থাকেন। প্রতিদিন বাইকের রাইডের ক্ষেত্রে অবলম্বন করতে হয় বিশেষ নিরাপত্তা। আমরা অনেকেই আছি যারা বাইক রাইড করি কিন্তু বাইক রাইডের জন্...

Bangla English
২ভালভ নাকি ৪ভালভ কোনটা বেশি ভালো?
2021-03-24

একটি মোটরসাইকেলের প্রধান অংশ হচ্ছে তার ইঞ্জিন।মোটরসাইকেলের ইঞ্জিন যদি নিম্ন মানের হয় তাহলে সেই ইঞ্জিন বাতিলের খাতায় নাম লিখতে খুব বেশি সময় নেয় না কারণ বর্তমানে অধিকাংশ বাইকাররা চান যে তার বাইকের ইঞ্জিন অন্তত ভালো মানের হোক।এই লক্ষ্যে বিভিন্ন বাইক প্রস্তত কারক কোম্পানী প্রতিদিনই চেষ্টা করে যাচ্ছে ...

Bangla English
কীভাবে মোটরসাইকেলে অতিরিক্ত ফুয়েল বহন করবেন?
2021-03-23

মোটরসাইকেল হল একটি বাহন যার মাধ্যেমে যে কোন স্থানে নিজের ইচ্ছা মত যাতায়াত করা যায়। এমন অনেক দর্শনীয় স্থান আছে যেখানে চার চাকার বাহন কিংবা অন্যান্য বাহন নিয়ে যাওয়া যায় না কিন্তু মোটরসাইকেল নিয়ে সেখানে অনায়াসেই যাওয়া যায়। বাইক নিয়ে ভ্রমণ পিপাসুরা সেই সুযোগটি কাজে লাগিয়ে ভ্রমণ করেন । বাংলাদেশের এমন অনে...

Bangla English
মোটরসাইকেল দুর্ঘটনার পিছনে থাকা কিছু কারণসূমহ
2021-02-28

আমরা আমাদের যাতায়াতের সুবিধার্থে প্রতিদিনই মোটরসাইকেল ব্যবহার করছি। মোটরসাইকেল আমাদের পথচলাকে করেছে স্বাধীন এবং স্বাছন্দ্যময়। আমাদের দেশের রাস্তাগুলোর প্রশস্ততা,নিয়ম কানুন ইত্যাদির সঠিক বাস্তবায়ন নেই যার ফলে প্রতিনিয়ত ঘটে চলেছে সড়ক দুর্ঘটনা। এই সড়ক দুর্ঘটনার প্রধান শিকার বাইকাররা। নিজের ভুল ...

Bangla English
বাইকারদের জন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জের দর্শনীয় স্থান সূমহ
2021-02-24

আমের রাজধানী হিসেবে খ্যাত চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা বাংলাদেশের উত্তর-পশ্চিম অঞ্চলে অবস্থিত। বরেন্দ্র ও দিয়াড় অঞ্চল হিসেবেও পরিচিত এই জেলা। এখানকার আম পৃথিবী বিখ্যাত। এছাড়াও এটি বিভিন্ন ঐতিহাসিক নিদর্শন ও প্রত্নসম্পদে সমৃদ্ধ একটি জেলা। প্রাচীন বাংলার রাজধানী গৌড়ের রাজধানী হিসেবে শিবগঞ্জ উপজেলায় বিভি...

Bangla English